বাংলাদেশ প্রতিবেদক: সমালোচনার মুখে বাতিল করা হলো জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের বই কেনার তালিকাটি। এতে অতিরিক্ত সচিব মোঃ নবীরুল ইসলামের লেখা ২৯টিসহ এক হাজার ৪৭৭টি বই ছিল।

আজ সোমবার জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব কে এম আলী আজম সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, তালিকাটি বাতিল করা হয়েছে। এখন নতুন তালিকা করা হবে, নাকি বিষয় উল্লেখ করে দেয়া হবে, তার জন্য একটি কমিটি করা হবে। এটি সভা করে ঠিক করা হবে। এটি না জানানো পর্যন্ত এ বিষয়ে কার্যক্রম না করার জন্য বলা হয়েছে।

গতকাল রোববার আলী আজম সাংবাদিকদের বলেছিলেন, তালিকায় একজন অতিরিক্ত সচিবের ২৯টি বই থাকার বিষয়টি পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে তা সংশোধন বা বাতিল করা হবে। বিভাগীয় কমিশনার, জেলা প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ের জন্য এ বইয়ের তালিকা করা হয়েছিল।

এর আগে ‘বই কেনার তালিকায় এক অতিরিক্ত সচিবের ২৯ বই’ শিরোনামে জাতীয় গণমাধ্যমে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ হয়। তাতে বলা হয়, সরকারি কর্মকর্তাদের মধ্যে পাঠাভ্যাস গড়তে জেলা-উপজেলায় বই কিনতে নয় কোটি ৫৪ লাখ টাকা বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। এর সাথে পাঠানো হয়েছে এক হাজার ৪৭৭টি বইয়ের তালিকা। সেই তালিকায় সরকারি কর্মকর্তাদের প্রাধান্য দেয়া হচ্ছে।

তালিকা খতিয়ে দেখা গেছে, বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে থাকা ১৬৬টি শিরোনামের মধ্যে কমপক্ষে ৪০টি বই আছে, যা ১৫ জন সরকারি কর্মকর্তার লেখা। এ তালিকায় অনেক গুরুত্বপূর্ণ লেখকের বই স্থান না পাওয়ায় নির্বাচন প্রক্রিয়া নিয়ে প্রশ্ন ওঠে।

Previous articleবাউফলে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শাহাদাৎ বার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা
Next articleআক্কেলপুরে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে নারীর মৃত্যু
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।