মঙ্গলবার, জুলাই ২৩, ২০২৪
Homeরাজনীতিবিএনপির নিয়ন্ত্রণহীন রাজনীতি অর্থহীন: কাদের সিদ্দিকী

বিএনপির নিয়ন্ত্রণহীন রাজনীতি অর্থহীন: কাদের সিদ্দিকী

ওসমান গনিঃ কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকী বিএনপিকে উদ্দেশ্য করে বলেছেন, ‘রাজনীতিতে যেই মাত্র জ্বালাও পোড়াও আসবে, ভাঙচুর আসবে, সেই মাত্র বুঝতে হবে যারা জ্বালাও পোড়াও করছে তারা হেরে যাচ্ছে। তারা (বিএনপি) এখন নিয়ন্ত্রণহীন হয়ে পড়েছে, নিয়ন্ত্রণহীন রাজনীতি অর্থহীন।’

বৃহস্পতিবার ( ১৯ অক্টোবর)  বেলা সাড়ে ১১টায় কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন ‘মহাসড়কের পাশে ফেলে যাওয়া বৃদ্ধকে’ দেখতে এসে আগামী নির্বাচন নিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘আমরা আইউব খাঁনকে জ্বালাও পোড়াও করে বিদায় করিনি, আমরা লাখো মানুষ রাস্তায় বেড়িয়ে আইউব খাঁনকে স্তব্ধ করে দিয়েছিলাম। তার পুলিশ, ইপিআর ও আর্মিকে স্তব্ধ করে আমরা বঙ্গবন্ধুকে জেলের তালা ভেঙ্গে বের করে এনেছিলাম। আজকে যদি তারা তেমন গণঅভূত্থ্যান করতে পারেন, করবেন!’

দেশের রাজনীতিতে আমেরিকার ভূমিকা নিয়ে তিনি বলেন, ‘আমেরিকা এসে তাদেরকে ক্ষমতায় বসিয়ে যাবে এটা বাংলার মানুষ মেনে নিবে না। বিশেষ করে ইসরাইল এখন গাজায় যা করছে, আমেরিকা ইসরাইলের কর্মকান্ডকে একেবারে সর্বোচ্চ ভাবে সাহায্য করছে। যারা মানুষ হত্যার পিছনে থাকে বাংলার মানুষ তাদের পিছনে থাকবে না। মুক্তিযুদ্ধের সময় আমেরিকা সপ্তম নৌবহর পাঠিয়ে দিয়েও পরাজিত হয়েছিল। এবার না হয় অষ্টম নৌবহর না হয় দশম নৌবহর পাঠাবে।’

তিনি বলেন, ‘আমি চাই স্বতঃস্ফূর্তভাবে মানুষ ভোট কেন্দ্রে গিয়ে ভোট দিক। ভোটারের উপস্থিতি যদি না হয় তাহলে সেটা আমার বোনের (শেখ হাসিনা) জন্য কলঙ্কজনক হবে।

সংবিধান অনুসারে শেখ হাসিনার অধীনেই নির্বাচন হবে। আসন্ন নির্বাচনে ৭০-৮০ শতাংশ ভোট যদি কাস্ট হয়, জাল ভোট যদি দিতে না হয়, তাহলে আমার তো মনে হয় শেখ হাসিনা বাংলাদেশের গণতান্ত্রিক রাজনীতির ইতিহাসে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবের চাইতেও কিছুটা উপরে যেতে পারে। অবাধ, সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচনে প্রয়োজন হলে আমরা ৩শ আসনে প্রার্থী দিব।

এর আগে বেলা ১১টায় চান্দিনা উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ে বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকীকে ফুল দিয়ে অভ্যর্থনা জানান স্থানীয় সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক ডা. প্রাণ গোপাল দত্ত।

এসময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা তপন বক্সী, উপজেলা নির্বাহী অফিসার তাপস শীল, পৌর মেয়র শওকত হোসেন ভূইয়া, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আরিফুর রহমান, থানা অফিসার ইন-চার্জ (ওসি) মো. সাহাবুদ্দীন খাঁন, সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার হাজী আব্দুল মালেক, কৃষক শ্রমিক জনতা লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক শফিকুল ইসলাম দেলোয়ার, সদস্য সৈয়দ মাহবুবুর রহমান পারভেজ, আবুল হোসেন, ফরিদ আহমেদ, যুব আন্দোলন সভাপতি হাবিবুন নবী সোহেল, যুব নেতা ইমরান জিসান, শাকিলুর রহমান শাকিল ও রাসেল মোহাম্মদ ডালিম।

আজকের বাংলাদেশhttps://www.ajkerkagoj.com.bd/
Ajker Bangladesh Online Newspaper, We serve complete truth to our readers, Our hands are not obstructed, we can say & open our eyes. County news, Breaking news, National news, bangladeshi news, International news & reporting. 24 hours update.
RELATED ARTICLES
- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments