বাংলাদেশ ডেস্ক: চতুর্থ দিনের প্রথম সেশনেই ৪৫৮ রানে অল আউট হয়ে ১৩০ রানের লিড নেয় বাংলাদেশ। বিপরীতে নিউজিল্যান্ডের দ্বিতীয় সেশনের শুরুতে ২ উইকেট তুলে নিলেও হাল ধরেন রস টেলর ও উইল ইয়াং। তারা নিউজিল্যান্ডকে লিড এনে দেন।

চতুর্থ দিন শেষে নিউজিল্যান্ডের সংগ্রহ ৫ উইকেটে ১৪৭। তাদের লিড ১৭ রান। ক্রিজে রয়েছেন রস টেলর ৩৭ ও রাবিন্দ্র ৬ রানে।

নিউজিল্যান্ড লিড নেয়ার শুরুতে এক ওভারের ব্যবধানে ৩ উইকেট তুলে নেন ইবাদত। উইল ইয়াংকে ৬৯ রানে সাজঘরে পাঠানোর পর নিকোলাস ‍ও ব্রুন্ডেলকে শূন্য রানে ফেরান।

এর আগে ২৯ রানে অধিনায়ক টম ল্যাথামকে শিকারে পরিণত করেন তাসকিন আহমেদ। ২৫ তম ওভারে ইবাদতের শিকার হলেন প্রথম ইনিংসে শতরান করা ডেভন কনওয়ে। দ্বিতীয় ইনিংসে কনওয়ে ৪০ বলে ১৩ রান করে সাজঘরে ফেরেন।

এদিকে, দিনের শুরুতে দুবার এলবিডব্লিউতে মেহেদী মিরাজকে আউট দিয়েছিলেন আম্পায়ার। তবে রিভিউ নেয়ার কারণে মাঠ ছাড়তে হয়নি মিরাজকে। তবে শেষ রক্ষা হয়নি। টিম সাউদির বাইরের একটি বলে খোঁচা মেরে কিপার টম ব্লানডেলের হাতে ক্যাচ তুলে প্যাভিলিয়নে ফেরেন মেহেদি। এর পরে একে একে ইয়াসির আলী, তাসকিন ও শরিফুলের উইকেট হারায় বাংলাদেশ। শেষ পর্যন্ত ৪৫৮ রানে থামে টাইগারদের ইনিংস।

মাত্র ১৩ রানে শেষ ৪ উইকেট হারানোর কারণে বড় লিডের সুযোগ হারায় টাইগাররা।

এর আগে ৬ উইকেটে ৪০১ তৃতীয় দিনের খেলা শেষ করেছিল বাংলাদেশ। আজ যোগ হয়েছে মাত্র ৫৭ রান। প্রথম ইনিংসে ১৩০ রানের লিড নিয়েছে বাংলাদেশ।

দলের পক্ষে সর্বোচ্চ রান করেন অধিনায়ক মুমিনুল হক। তিনি করেন ৮৮ রান। তার ইনিংসটি ছিল ১২ চারে সাজানো। লিটন দাস করেন ৮৬ রান। তার ইনিংসটি ছিল ১০ চারে সাজানো। এছাড়াও মাহমুদুল হাসান জয় ৭টি চারের সমাহারে করে ৭৮ রান। এছাড়াও নাজমুল হোসেন শান্ত ৭টি চার ও একটি দৃষ্টিনন্দন ছক্কার সমাহারে ৭৮ রানের ঝলমলে ইনিংস উপহার দেন।

Previous articleযা-ই ঘটে যাক, পরমাণু যুদ্ধ নয়: শপথ পাঁচ শক্তিধর দেশের
Next articleগোয়েন্দা সংস্থার পরিচয়ে তৈমূরের কাছে চাঁদা দাবি, যুবক আটক
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।