মানিকগঞ্জের দৌলতপুরে পুরাতন সিলেবাসে পরীক্ষা দিল ৬শ শিক্ষার্থী

মিজানুর রহমান: এবারের এসএসসি পরীক্ষার প্রথম দিনে বাংলা প্রথম পত্রের পুরাতন সিলেবাসে (বহুনির্বাচনী অভিক্ষা) নৈর্ব্যক্তিক পরীক্ষা দিল ৬০০ পরীক্ষার্থী। পুরাতন সিলেবাস অনুযায়ী প্রশ্নপত্র হওয়ায় ওই পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা খারাপ হয়েছে বলে শিক্ষার্থীরা অভিযোগ করেছেন। মানিকগঞ্জের দৌলতপুর উপজেলার পিএস সরকারি মডেল উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে এ ঘটনাটি ঘটেছে বলে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা জানিয়েছেন। শনিবার ছিল ২০১৯ সালের এসএসসি পরীক্ষার প্রথম দিনে এমন ঘটনা ঘটে। ৩০ নম্বরের পরীক্ষায় পুরাতন সিলেবাসে প্রশ্ন হওয়ার বিষয়টি কেন্দ্রের সচিব, হল সুপার ও শিক্ষকদের জানানো হয়। পরে তারা বিষয়টি ধামা চাপা দেওয়ার চেষ্টা করে কিন্তু শিক্ষার্থীদেরকে ওই প্রশ্নপত্রে পরীক্ষা দিতে নির্দেশ দেন। একাধিক পরীক্ষার্থীরা বলেন, পুরাতন সিলেবাস অনুযায়ী প্রশ্নর কারনে তাদের প্রত্যেকের পরীক্ষা ভালো হয়নি। শিক্ষকরা প্রশ্ন না দেখেই শিক্ষার্থীদের মধ্যে বিতরণ করেছে বলেও তারা অভিযোগ করেন। এলাকাবাসী সুত্রেজানাযায়, দৌলতপুর উপজেলার পিএস সরকারি মডেল উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে পরীক্ষার্থী ছিল ৬০০ জন। পরীক্ষার পরপরই ওই কেন্দ্রের শিক্ষার্থীরা এ নিয়ে বিক্ষোভ করে। পরে কেন্দ্র সচিব মো. মিজানুর রহমান ও হল সুপার মজিবর রহমান ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলে শিক্ষার্থীদের শান্ত করেন। এ ব্যাপারে কেন্দ্র সচিব মো.মিজানুর রহমান বলেন, বিষয়টি আমি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে সাথে সাথে জানিয়েছি। কর্তৃপক্ষ এই প্রশ্নেই পরীক্ষার ফলাফল দেয়ার কথা বলেছেন।