বাংলাদেশ প্রতিবেদক: মাদারীপুরের শিবচরে গৃহবধূকে গণধর্ষণের অভিযোগে দুজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শনিবার (১২ ডিসেম্বর) রাতে শিবচরের বাখরেরকান্দি এলাকা থেকে সোহাগ হাওলাদার ও আঁখি আক্তার নামে দুজনকে গ্রেফতার করা হয়।

পুলিশ ও নির্যাতিতার পরিবার জানায়, শনিবার দুপুরে শিবচর উপজেলার পাঁচ্চর এলাকার সোনারবাংলা প্লাজার সামনে থেকে জোরপূর্বক ওই গৃহবধূকে একটি ইজিবাইকে উঠিয়ে বাখরেরকান্দিতে নিয়ে যায় সোহাগ হাওলাদার নামে এক যুবক। সেখানকার একটি পরিত্যক্ত ঘরে আটকে রেখে একাধিক ব্যক্তি ওই গৃহবধূকে গণধর্ষণ করে বলে অভিযোগ নির্যাতিতার। পরে সেখান থেকে সন্ধ্যার দিকে পুনরায় ইজিবাইকযোগে অন্যত্র নেওয়ার সময় ওই গৃহবধূর চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এলে পালিয়ে যায় অভিযুক্তরা। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে গৃহবধূকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

রাতেই শিবচর থানায় পাঁচজনের নামে মামলা করে নির্যাতিতা। অভিযান চালিয়ে এক নারীসহ দুজনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এদিকে নির্যাতিতা ওই গৃহবধূকে পুলিশ হেফাজতে রাখা হয়েছে।

শিবচর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মিরাজ হোসেন জানান, প্রাথমিকভাবে গণধর্ষণের সত্যতা পাওয়া গেছে। ধর্ষণের ঘটনায় সোহাগ হাওলাদার, আঁখি আক্তার, সুবল মণ্ডল, সোহেল, এসকানের নামে মামলা দায়ের করে নির্যাতিতা ওই গৃহবধূ। পরে অভিযান চালিয়ে সোহাগ হাওলাদার ও আঁখি আক্তারকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বাকিদের ধরতে অভিযান চলছে।