বাংলাদেশ প্রতিবেদক: সিলেটের বিয়ানীবাজার উপজেলার লাউতায় পঞ্চম শ্রেণির এক শিক্ষার্থী গণধর্ষণের শিকার হয়েছেন। ধর্ষণে অভিযুক্ত দুইজনকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে এলাকাবাসী। বুধবার (৭ এপ্রিল) তাদের বিরুদ্ধে বিয়ানীবাজার থানায় মামলা দায়ের করেন ভিকটিমের বাবা।

আটককরা হলেন- বাহাদুরপুর দক্ষিণ ঠিকরপাড়া গ্রামের মৃত ছাইদ আলীর ছেলে ফয়ছল আহমদ পেটলা ও উত্তর গাঙ্গপার এলাকার মৃত আব্দুর খালিকের ছেলে মিশুক আহমদ।

বিয়ানীবাজার থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মেহেদী হাসান জানান, মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে ঘরের বারান্দায় নলকূপ থেকে পানি নিতে বের হলে ১২ বছর বয়সী শিশুকে জোরপূর্বক তুলে নিয়ে পাশের একটি নির্জন জায়গায় অভিযুক্ত দুইজন ধর্ষণ করে অজ্ঞান অবস্থায় রেখে পালিয়ে যায়। এ সময় ঘরের লোকজন খোঁজাখুঁজি করে অজ্ঞান অবস্থায় তাকে ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করেন। এ ঘটনা জানাজানি হলে স্থানীয়রা ধর্ষকদের আটক করে রাখেন। পরে পুলিশের কাছে সোপর্দ করে। অভিযুক্ত দুই ধর্ষককে আটক করে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

Previous articleহেফাজতসহ সব উস্কানিদাতাদের আইনের আওতায় আনার নির্দেশ দিয়েছে সরকার
Next article‘শিশুবক্তা’ রফিকুল আটক: লড়াইয়ের হুমকি হেফাজতের
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।