মিজানুর রহমান বাদল: মানিকগঞ্জের সিংগাইরে ছেলে পিটিয়ে হত্যা করেছে পিতাকে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার জামির্ত্তা ইউনিয়নের চন্দনপুর গ্রামে। নিহতের নাম সেলিম হোসেন খোকন (৫০)। হত্যাকারী ছেলের কাউছার হোসেন (২২)। আজ বৃহস্পতিবার(২৯ এপ্রিল) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে নিজ বাড়িতে ঘরের ভিতরে এ ঘটনা ঘটেছে। নিহত সেলিম হোসেন খোকন ওই গ্রামের মৃত ফালান ড্রাইভারের ছেলে সে ৫ সন্তানের জনক। স্থানীয়সূত্রে জানা গেছে, পারিবারিক কলহের জের ধরে সেলিম হোসেন খোকনকে তার দ্বিতীয় পুত্র কাউছার লোহার রড দিয়ে পিটিয়ে হত্যা করেন। এ সময় খবর পেয়ে প্রতিবেশিরা এগিয়ে আসে এ সময় ঘাতক পালিয়ে যায়। নিহতের বোন মমতাজ বেগম জানান, আমার ভাই ইতিপূর্বে গাড়ীর ড্রাইভারী করতেন। গত ৭ মাস ধরে প্যারালাইসেস হয়ে বাড়িতেই চিকিৎসা নিচ্ছিলেন। অনেকটা সুস্থ হয়েও ওঠে ছিলেন তিনি। ঘটনার সময় তার ছেলে কাউছার এবং স্ত্রী আসমা ঘরের ভিতর তার শয়ন কক্ষে পিটিয়ে হত্যা করে। ৬ বছরের ভাতিজি খাদিজার কাছ থেকে খবর পেয়ে আমি লোকজন নিয়ে ঘটনাস্থলে গেলে খুনী কাউছার আমাকেও হত্যার ভয় দেখিয়ে পালিয়ে যায়। স্থানীয় বাসিন্দা মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, অভিযুক্ত কাউছার পেশায় মিস্ত্রি হলেও মাদকাসক্ত ছিলেন। এ নিয়ে তাদের অভার-অনটনের সংসারে প্রতিনিয়ত ঝগড়া-ঝাটি লেগেই থাকতো। পুলিশ সুরতহাল রিপোর্ট শেষে লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মানিকগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেছেন। পরিবারে বইছে শোকের মাতম। এ ব্যাপারে শান্তিপুর (বাঘুলি) তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ পুলিশ পরিদর্শক মোঃ লুৎফর রহমান বলেন,এ হত্যার ঘটনায় থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

Previous articleসিংগাইরে ৪ ডাকাত গ্রেফতারসহ লুণ্ঠিত গাড়ি উদ্ধার
Next articleচৌহালীতে যমুনায় অবৈধ বালু উত্তোলন, ৪ ব্যবসায়ীর জরিমানা
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।