সাঁথিয়ার বিষ্ণুপুর গ্রামের বিমল কুমারের ঘরে স্তুপ করে রাখা হয়েছে চামড়া।

আব্দুদ দাইন: ঢাকার ট্যানারী মালিকরা নাটোর আড়তে চামড়া কিনতে শুরু না করায় পাবনার সাঁথিয়ার চামড়া ব্যবসায়ীরা মোটা অংকের লোকসানের মুখে পড়ার আশংকা করছে। বিগত বছরগুলোর বকেয়া টাকা ট্যানারী মালিকরা পরিশোধ না করায় হতাশায় ভুগছে এ সব ব্যবসায়ী।

ঈদুল আযহার কোরবানির পশুর চামড়ার সরকার নির্ধারিত ৪০/৪৫ টাকা ফুটে কিনতে চাচ্ছে না ট্যানারী মালিকরা। তারা নির্ধারিত মূল্যের চেয়ে কম দামে চামড়া কিনতে বিভিন্ন টাল বাহনা করছে বলে জানান ব্যবসায়ীরা। ব্যবসায়ীদের দাবি মালিক ও কোম্পানীর মালিকরা না এসে প্রতিনিধির মাধ্যমে নাটোর আড়তে কম দামে চামড়া কিনতে চাচ্ছে। আড়তে দাম কম হওয়ায় ব্যবসায়ীরা নিজ নিজ বাড়িতে স্তুপ করে রেখেছে চামড়া। সাঁথিয়ার সবচেয়ে বড় ব্যবসায়ী ক্ষেতুপাড়া ইউনিয়নের বিষ্ণুপুর গ্রামের বিমল কুমারের ছেলে শ্যামল কুমার জানান, ট্যানারী মালিকরা ৩০/৩৫ টাকা ফুট মুল্যে চামড়া কিনতে আগ্রহী। আমরা ফরিয়া ও সরাসরি মালিক পক্ষের নিকট থেকে ৩০/৩৫ টাকা ফুট মুল্যে চামড়া কিনেছি। শ্রমিক দ্বারা পরিস্কার, লবণ মিশানো ও পরিবহন মিলে ফুট প্রতি ১০ টাকা খরচ হয়। সে তুলনায় চামড় প্রতি ৩০০/৪০০ টাকা লোকসান হবে। ১৩শত পিস গরুর চামড়ায় এতবেশি ক্ষতি পোষানো সম্ভব নয়। তিনি আরও জানান, চারবছর আগে ঢাকা হেমায়েতপুরের সাবিনা ট্যানারী মালিকের নিকট ৩২লক্ষ টাকার চামড়া বাঁকী দেই। এপর্যন্ত মাত্র আটলক্ষ টাকা পরিশোধ করেছে। ২৪লক্ষ টাকা পাওয়া নিয়ে আতংকে রয়েছি। উপজেলার কাশিনাথপুরের ব্যবসায়ী শুটকা জানান, আমি ও সুরমান প্রায় ১৫’শ চামড়া নিয়ে নাটোর আড়তে যাই। সেখানে ঢাকার ট্যানারী মালিকরা না আসায় চামড়ার দাম কম। লকডাউনে বসে থেকে খরচ হওয়ায় বাধ্য হয়ে চামড়া রেখে বাড়িতে চলে এসেছি। ব্যবসায়ী অজিত কুমার জানান, কোরবানির সময় লাভের আশায় সুদ ও ঋণ করে টাকা এনে চামড়া কিনে থাকি। লোকসান হলে আত্মহত্যা ছাড়া উপায় থাকবে না। ব্যবসায়ীরা জানান, শুধু মাত্র সাঁথিয়া উপজেলা থেকে প্রায় সাতহাজার পিস চামড়া নাটোর আড়তে যাবে। সরকারের নির্ধারিত দামে চামড়া বিক্রয় করতে না পারলে তারা মোটা অংকের লোকসানের মুখে পড়বে হবে। সাঁথিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার এসএম জামাল আহমেদ জানান, সরকারের নির্ধারিত মূল্যে কেনা ও চামড়ার যেন কোন অপ্রব্যবহার না হয় সে দিকে বিশেষ নজর আমাদের ছিল। ব্যবসায়ীদের চামড়ার ন্যায্য মূল্য পাওয়ার ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট সরকারি দপ্তরকে জানানো হবে।

Previous articleআক্কেলপুরে বাড়ির ছাদ থেকে পড়ে স্কুলছাত্রীর মৃত্যু
Next articleপাঁচবিবিতে প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তার নকশা বর্হিভূত বাড়ি নির্মাণ
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।