মিলি চক্রবর্তী

বাংলাদেশ প্রতিবেদক: ঠাকুরগাঁওয়ের মিলি চক্রবর্তীকে পিটিয়ে ও পুড়িয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে জানিয়েছে সিআইডি। মঙ্গলবার এ সংক্রান্ত মামলার ভিসেরা প্রতিবেদনের তথ্যের ভিত্তিতে এ কথা জানায় সিআইডি।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা আব্দুর রাজ্জাক বলেন, ‌‘মিলি চক্রবর্তীর মৃত্যুর কারণ আমাদের কাছে এখন স্পষ্ট। ভিসেরা রিপোর্ট আমাদের হাতে এসেছে। সে অনুযায়ী আমরা মামলার তদন্ত আরও বেগবান করতে পারব।’

তিনি বলেন, ‘ভিসেরা প্রতিবেদন পাওয়ার আগেও আমরা নিশ্চিত ছিলাম যে, এটা হত্যাকাণ্ড। সে কারণেই পুলিশ তখন একটি অপমৃত্যুর মামলা করে। এরইমধ্যে আমরা ঘটনার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে দুজনকে গ্রেপ্তার করেছি।’

গত ৮ জুলাই সকালে ঠাকুরগাঁও শহরের মোহাম্মদ আলী সড়কের পাশে নিজের বাসার গলি থেকে মিলি চক্রবর্তীর পোড়া ও অর্ধনগ্ন মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। বিষয়টি নিয়ে তখন চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়। দুইদিন পর পুলিশ বাদী হয়ে এ ঘটনায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করে। গত ৫ আগস্ট মামলাটি সিআইডিতে হস্তান্তর করা হয়।

এদিকে পরিবার থেকে হত্যামামলা না করায় সমালোচনা ও সন্দেহ বাড়তে থাকে। অনেকে অভিযোগ করেন, ঘটনাটি ধামাচাপা দিতে চায় মিলির পরিবার। তবে মিলি চক্রবর্তীর ফেসবুকে কিছু ম্যাসেজ নিয়ে কিছুদিন আগে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে প্রতিবেদন প্রকাশিত হয় এবং সিআইডি তদন্তে নেমে মিলির ছেলে স্থানীয় বিএনপি নেতা আমিনুল ইসলাম সোহাগকে এ মামলায় গ্রেপ্তার করে। সোহাগ এখন কারাগারে রয়েছেন।

Previous articleডমিঙ্গোর ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুললেন মাশরাফি
Next articleনির্মাণে ত্রুটির কারণেই ফ্লাইওভারে ফাটল: চসিক মেয়র
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।