স্বপন কুমার কুন্ডু: ঈশ্বরদী থেকে রাজশাহীর বানেশ্বর পর্যন্ত আঞ্চলিক সড়ক উন্নীতকরণ কাজের অংশ হিসেবে সড়কের দু’পাশের অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ অভিযান চালিয়েছে পাবনা সড়ক ও জনপথ বিভাগ।

বুধবার (২২ জুন) সকাল সাড়ে ১১টায় সড়ক ও জনপথ বিভাগের আইন কর্মকর্তা এবং নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট কামরুজ্জামান মিয়ার নেতৃত্বে ঈশ্বরদীর আলহাজ্ব মোড় থেকে এ উচ্ছেদ অভিযান শুরু হয়। অভিযানে আলহাজ্ব মোড় হতে রেলগেট পর্যন্ত চার শতাধিক দোকানপাট ও স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়। এসময় উপজেলা ছাত্রলীগের কার্যালয় ও উপজেলা যুবলীগ কার্যালয়ের বারান্দা উচ্ছেদ করা হয়।

আলহাজ্ব মোড় ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি মকবুল হোসেন চুন্নু বলেন, উচ্ছেদ অভিযানে শত শত ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী বেকার হয়ে পরবে। ক্ষুদ্র এসব ব্যবসায়ীরা সড়ক ও জনপথের অব্যবহৃত জায়গায় ছোট ছোট দোকান ঘর নির্মাণ করে জীবিকা নির্বাহ করছিল।

পৌরসভার কাউন্সিলর ইউসুফ আলী প্রধান বলেন, স্থানীয় জনপ্রতিনিধি হিসেবে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও নির্বাহী প্রকৌশলীকে উচ্ছেদ অভিযান না চালিয়ে ব্যবসায়ীদের দোকানপাট সরিয়ে নেয়ার জন্য আরো দুই দিন সময় দেয়ার জন্য অনুরোধ করেছিলাম। উচ্ছেদ অভিযানের ফলে দোকানপাট ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেয়া হয়েছে। এতে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের পথে বসতে হবে।

উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক খন্দকার আরমান বলেন, উচ্ছেদ অভিযানে ছাত্রলীগ কার্যালয় ভেঙ্গে দেয়া হয়েছে। কার্যালয়ের আসবাবপত্র আগেই সরিয়ে নেয়া হয়।

ঈশ্বরদী পৌরসভার মেয়র ইছাহক আলী মালিথা ঘটনাস্থলে গিয়ে ব্যবসায়ীদের সান্তনা দেন। এসময় তিনি বলেন, ইতোপূর্বে একাধিকবার উচ্ছেদ অভিযান স্থগিত করা হয়েছিল। এবার সড়ক উন্নতিকরণ কাজ শুরু হয়ে যাওয়ায় উচ্ছেদ অভিযান ঠেকানো সম্ভব হয়নি।

পাবনা সড়ক ও জনপথের নির্বাহী প্রকৌশলী (চলতি দায়িত্বরত) আবুল মনসুর আহমেদ জানান, ঈশ্বরদী-বানেশ্বর আঞ্চলিক সড়কের উন্নতিকরণ কাজের অংশ হিসেবে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হচ্ছে। ইতিপূর্বে অবৈধ স্থাপনার মালিকদের নোটিশ ও মাইকিং করে সতর্ক করা হয়েছিল।

Previous articleকোম্পানীগঞ্জে নোয়াখালী প্রতিদিন সম্পাদক রফিকুল আনোয়ারের শোকসভা অনুষ্ঠিত
Next articleরংপুরে জিংক সমৃদ্ধ ধান ও চাল সংগ্রহ বিষয়ক কর্মশালা
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।