রবিবার, জুন ২৩, ২০২৪
Homeসারাবাংলাবিএনপির গণসমাবেশকে কেন্দ্র করে সরগরম রাজশাহীর মাদ্রাসা মাঠ এলাকা, রান্না হচ্ছে মাছ-মাংস

বিএনপির গণসমাবেশকে কেন্দ্র করে সরগরম রাজশাহীর মাদ্রাসা মাঠ এলাকা, রান্না হচ্ছে মাছ-মাংস

মাসুদ রানা রাব্বানী: রাজশাহীতে বিএনপির বিভাগীয় গণসমাবেশ (৩ ডিসেম্বর) শনিবার। এর আগে ডাকা হয়েছে পরিবহন ধর্মঘট। এ কারণে সমাবেশকে ঘিরে বিভিন্ন জেলা-উপজেলা থেকে দুদিন আগে থেকেই নেতাকর্মীরা আসতে শুরু করেছেন রাজশাহীতে। এর ফলে মিছিল-স্লোগানে মুখরিত হয়ে উঠেছে রাজশাহীর সমাবেশস্থল, মাদরাসা মাঠ এলাকা।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, মাদরাসা মাঠের পাশের ঈদগাহ মাঠে অবস্থান নেওয়া নেতাকর্মীরা দলে দলে স্লোগান মিছিলে মেতে উঠেছেন। নাটোর জেলা বিএনপির সদস্য ফরহাদ আলি শাহেদ বলেন, আমি ৫০ জন কর্মী নিয়ে এসেছি। সমাবেশ সফল করেই এখান থেকে যাবো। আওয়ামী লীগকে এখান থেকে জানান দিতে চাই, বিএনপি এখনো কতটা ঐক্যবদ্ধ ও শক্তিশালী।

সিরাজগঞ্জ বিএনপির প্রচার সম্পাদক মকবুল বলেন, পরিবহন ধর্মঘট আমাদের সমাবেশে যোগদানে বাধা দিতে পারেনি। আওয়ামী লীগ সরকার যতই বাড়াবাড়ি করুক, ক্ষমতা এবার ছাড়তেই হবে। আওয়ামী লীগ সরকারের পতনের মাধ্যমে আমাদের কর্মসূচি থামবে। নিত্যপণ্য ও জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধি, পুলিশের গুলিতে নেতাকর্মীদের মৃত্যুর প্রতিবাদ এবং বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি ও নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবিতে দেশের প্রত্যেক বিভাগে গণসমাবেশ করছে বিএনপি।

এদিকে সমাবেশে আসা হাজার হাজার নেতাকর্মীদের জন্য রান্না করা হচ্ছে মাছ, গরুর মাংস, খাসির মাংস, সবজিসহ নানা রকমের খাবার। শুক্রবার (২ ডিসেম্বর) দুপুর ১২টার দিকে রাজশাহী কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মাঠে গিয়ে দেখা যায়, অস্থায়ীভাবে ক্যাম্প তৈরি করা হয়েছে। সেগুলোতে রাজশাহী বিভাগের বিভিন্ন জেলা-উপজেলা থেকে আসা নেতাকর্মীরা অবস্থান করছেন। ক্যাম্পে ক্যাম্পে চলছে রান্না ও খাবারে আয়োজন। ক্যাম্পগুলোতে মজুদ করে রাখা হয়েছে চালের বস্তা, তেল ও রান্নার সামগ্রী। কয়েকজন নারীকে পেঁয়াজ, রসুন, আদা, মরিচ কাটতে দেখা যায়। প্রতিটি ক্যাম্পেই বড় বড় ডেকচিতে রান্না হচ্ছে গরুর মাংস, খাসির মাংস, মুরগির মাংস, ডিম, সবজিসহ আরও নানা রকমের খাবার। একসঙ্গে রান্না, খাওয়া ও আড্ডা দেওয়াসহ সব মিলিয়ে সেখানে এখন উৎসবমুখর পরিবেশ বিরাজ করছে।

জয়পুরহাট থেকে আসা বাবুর্চি শহিদ বলেন, আমাদের এখানে মাছ, মাংস, ডিম, সবজিসহ নানা রকমের খাবার রান্না হচ্ছে। জুমার নামাজের পর ক্যাম্পে খাবার পরিবেশন করা হবে। প্রত্যেক ক্যাম্পেই নিজেদের মানুষ ছাড়া অন্যান্য নেতাকর্মীদেরও খাবার দেওয়া হবে।

বগুড়া থেকে আসা রবিউল ইসলাম নামের এক কর্মী বলেন, আমাদের থাকা খাওয়ার কোনো সমস্যা হচ্ছে না। আমরা বাবুর্চি নিয়ে এসে রান্না করছি। সবদিক দিয়ে ভালো লাগছে। আশা করি আগামীকাল আমাদের গণসমাবেশ সফল হবে। প্রসঙ্গত, শনিবার (৩ ডিসেম্বর) রাজশাহীতে বিএনপির বিভাগীয় গণসমাবেশ। সমাবেশ সফল করতে বুধবার রাত এবং বৃহস্পতিবার সকাল থেকে রাত পর্যন্ত কয়েক হাজার নেতাকর্মী বিভাগের বিভিন্ন স্থান থেকে এসে অবস্থান নিয়েছেন।

আজকের বাংলাদেশhttps://www.ajkerbangladesh.com.bd/
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।
RELATED ARTICLES
- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments