বাংলাদেশ ডেস্ক: বাবা পুলিশের উচ্চ পর্দস্থ কর্মকর্তা ডিআইজি। অন্যদিকে মেয়েও পদোন্নতি পেয়ে হয়েছেন পুলিশের উচ্চ পদস্থ কর্মকর্তা ডিএসপি হয়েছেন। সম্প্রতি পুলিশ বাবা-মেয়ের স্যালুট বিনিময়ের ছবি নেট দুনিয়া ভাইরাল হয়েছে। অনেকেই বাবা-মেয়ের ছবি দেখে প্রশংসায় ভাসছেন।

ভাইরাল ছবিতে দেখা গেছে, গর্বিত বাবাকে স্যালুট ফিরিয়ে দিচ্ছেন মেয়ে। মেয়ের গ্র্যাজুয়েশন প্যারেডে অংশ নেওয়ার পরে মুহূর্তটি ধারণ করা হয়।

পুলিশের ডিএসপি হওয়া মেয়ের নাম অপেক্ষা নিম্বাদিয়া। তিনি সম্প্রতি পদোন্নতি পেয়ে ভারতের উত্তরপ্রদেশের পুলিশের যোগ দিয়েছেন। আর মেয়ের বাবা এএসপি নিম্বাদিয়াইন্দো-টিবেটান বর্ডার পুলিশে ডিআইজি হিসেবে কর্মরত রয়েছেন। অপেক্ষা নিম্বাদিয়া মোরাদাবাদের ড. বি আর আম্বেদকর পুলিশ একাডেমি থেকে স্নাতক হওয়ার পর বাবা-মেয়ে স্যালুট জানানোর দৃশ্য ক্যামেরাবন্দি করা হয়। ইন্দো-টিবেটান বর্ডার পুলিশের পক্ষ থেকে ইনস্টাগ্রামে ছবিটি পোস্ট করা হয়েছে। ক্যাপশনে লেখা হয়েছে, ‘গর্বিত বাবা গর্বিত মেয়ের কাছ থেকে স্যালুট নিচ্ছেন’।

এরই মধ্যে পোস্টটিতে হাজার হাজার লাইক পড়েছে। অনেকেই ছবিটিতে মন্তব্য করেছেন। ইনস্টাগ্রাম ব্যবহারকারীরা বাবা-মেয়েকে শুভেচ্ছো জানিয়েছেন এবং এমন অর্জনের জন্য তাদেরকে অভিবাদন জানিয়েছেন। কেউ কেউ ছবিতে’জয় হিন্দ’ লিখেছেন এবং অনেকে লাভ ইমোজি ব্যবহার করেছেন।

সামাজিক মাধ্যম ব্যবহারকারী অনেকে লিখেছেন, মেয়েদের পারিবারিক ঐতিহ্য বহন করতে দেখে ভালো লাগছে। তিন প্রজন্ম ধরে নিম্বাদিয়া পরিবার পুলিশ বাহিনীতে কাজ করছে।

তবে এবারই প্রথমবার নয়,এর আগেও দেশটির পুলিশবাহিনীতে বাবা-মেয়ের একে অপরকে স্যালুট করতে দেখা গেছে। অন্ধ্রপ্রদেশ পুলিশ সেই ছবি পোস্ট করেছিল। ওই ছবিতে সার্কেল অফিসার বাবা ডিউটিরত ডেপুটি সুপারিন্টেন্ডেন্ট মেয়েকে স্যালুট করেন।

Previous articleঢাবির ‘ক’ ইউনিটের ফল প্রকাশ, রেকর্ড গড়ে প্রথম হলেন বগুড়ার মিফতাহুল
Next articleআওয়ামী লীগ হিন্দুদেরকে ব্যক্তিগত সম্পত্তি মনে করে: ফখরুল
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।