আ.লীগের বিদ্রোহীদের ২৪ ঘন্টার আল্টিমেটাম

সদরুল আইন: সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মূল মাথা ব্যাথা হিসেবে দেখা দিয়েছে ওয়ার্ড কাউন্সিলর প্রার্থীরা। ঢাকা উত্তরে মোট ওয়ার্ডের সংখ্যা ৫৪টি। এর মধ্যে ৪০টিতেই আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীরা দাঁড়িয়েছেন এবং এরা প্রভাবশালী।

আর দক্ষিণে ৭৫টি ওয়ার্ডের মধ্যে ৭২টিতে বিদ্রোহী প্রার্থী রয়েছে। আবার কোনো কোনো স্থানে একাধিক বিদ্রোহী প্রার্থী রয়েছে।

আওয়ামী লীগের তথ্য অনুযায়ী, ১২০ জন এবার মনোনয়ন না পেয়ে বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে দাঁড়িয়েছেন। এই বিদ্রোহী প্রার্থীদের থাকার মূল সমস্যা হলো যে তারা আওয়ামী লীগকে বিভক্ত করছে।

ওয়ার্ড পর্যায়ে আওয়ামী লীগের কর্মীরা বিভক্ত হয়ে পড়েছে। একটা অংশ বিদ্রোহীদের পক্ষে কাজ করছে। আরেকটা অংশ আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থীদের পক্ষে কাজ করছে।

এর ফলে মেয়র প্রার্থীদের উপর নেতিবাচক প্রভাব পড়ছে। এ কারণে আজ আওয়ামী লীগ সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে ২৪ ঘন্টার মধ্যে অর্থাৎ আগামী ২৪ ঘন্টার মধ্যে এই বিদ্রোহী প্রার্থীদের সরে যেতে হবে।

নির্বাচনে প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ সময় অতিবাহিত হয়ে গেছে,। কাজেই এখন বিদ্রোহীদের মনোনয়ন আনুষ্ঠানিকভাবেপ্রত্যাহার করার কোনো সুযগ নেই কিন্তু আওয়ামী লীগের শীর্ষ নেতারা বলছেন, তারা যদি নির্বাচনী প্রচারণা থেকে দূরে থাকে এবং নৌকা প্রতীকে যারা কাউন্সিলর হিসেবে মনোনয়ন পেয়েছে তাদের পক্ষে কাজ করে তাহলেই নির্বাচন প্রচারণায় একটা শৃঙ্খলা ফিরে আসবে।

এ কারণেই ২৪ ঘন্টার মধ্যে যদি বিদ্রোহী প্রার্থীরা পদত্যাগ না করে তাহলে পরে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

এমনকি তাদের বহিষ্কার করা হতে পারে বলে আওয়ামী লীগের শীর্ষ পর্যায়ের সূত্রে জানা গেছে।