বেলকুচিতে অভাব-অনটন সামলাতে না পেরে বৃদ্ধের আত্মহত্যা

এম এ মুছা: বেলকুচিতে অভাব অনটনে হতাশায় সংসার চালাতে গিয়ে হিমশিম খেয়ে আত্মহত্যা করেছে বেলকুচি উপজেলার মাঝ বয়সী এক বৃদ্ধ। রবিবার সকালে বেলকুচি উপজেলার ভাঙ্গাবাড়ী ইউনিয়নের উত্তর বানিয়াগাঁতী গ্রামে রফিক তালুকদার (৫৫) নামের ঐ ব্যক্তি তার শ্বশুরবাড়ীর শয়ন ঘরে ধর্নার সাথে রশি দিয়ে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে। সে মৃত দেবাত তালুকদারের ছেলে।
পারিবারিক সূত্রে জানাযায়, সে ঢাকায় একটি বায়িং হাউজে কর্মরত ছিল। কিন্তু শারীরিক অসুস্থতার কারণে চাকুরী করা সক্ষমতা হারিয়ে ফেলায় বাড়ীতে ফিরে আসে। তার একটি মেয়ে প্রতিবন্ধী ও সে অসুস্থ থাকার কারণে সংসার চালাতে হিমশিম খেয়ে দীর্ঘদিন ধরে মানসিক ভাবে ভেঙ্গে পরে। এমতাবস্থায় রবিবার সকালে সবার অগোচরে তার সয়ন ঘরের দরজা বন্ধ থাকায় পরিবারের সদস্যরা দরজা খোলার জন্য ডাকলে কোন সাড়া না পেয়ে দরজা ভেঙ্গে দেখা যায় ঘরের ধর্নার সাথে ফাঁস দেওয়া আবস্থায় ঝুলে আছে। এ বিষয়ে বেলকুচি থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আনোয়ারুল ইসলাম জানান, আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। মানসিক ভাবে ভেঙ্গে পরার কারণে বানিয়াগাঁতী গ্রামের রফিক তালুকদার নামের এক ব্যক্তি আত্মহত্যা করেছে। এ ব্যাপারে থানায় একটি অপমৃত্যু জনিত মামলা হয়েছে।