পাবনার সাঁথিয়ায় রাস্তার উপর পল্লীবিদ্যুতের খুঁটি।

আব্দুদ দাইন: পাবনার সাঁথিয়ার সড়কের মাঝ খানে বৈদুতিক খুঁটির কারণে দীর্ঘ দিন বন্ধ রয়েছে পাকাকরন কাজ।পল্লীবিদ্যুতের দায়িত্বহীনতায় অপরিকল্পিত বৈদ্যুতিক খুঁটি স্থাপনে সড়ক প্রস্থকরণে জটিলতা দেখা দিচ্ছে। এতে মাসের পর মাস বন্ধ রাখতে হচ্ছে পাকাকরণের কাজ। দুর্ঘটনাসহ বিভিন্ন সমস্যার সম¥ুখীন হচ্ছে সাধারণ জনগণ। । জানাযায়, উপজেলার করমজা ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয় থেকে স্যানিলা হয়ে চতুরহাট বেড়া বাস স্ট্যান্ড) পর্যন্ত এলজিইডি’র পাকাকরণ কাজ ১৯/২০ অর্থ বছরে শুরু হয়। রাস্তার স্যানিলা সাহা পাড়ার এনামুলের বাড়ির সামনে রাস্তার মাঝ খানে রয়েছে একটি বৈদ্যুতিক খুঁটি। এ খুঁটিটি অপসারণ না করা পর্যন্ত রাস্তার আংশিক কাজ বন্ধ রয়েছে। বিদ্যুতের খঁটি সরানোর জন্য উপজেলা এলজিইডি অফিস থেকে জুন মাসে পল্লী বিদ্যুত অফিস বরাবর চিঠি দেওয়া হলে তা এ পর্যন্ত অপসারণ করা হয়নি। খুঁটি অপসাররণ না করায় বন্ধ রয়েছে পাকাকরণ কাজ। এতে প্রতিনিয়ত দুর্ঘটনাসহ যাতায়াতে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি হচ্ছে পথচারীদের। সাঁথিয়া উপজেলা প্রকৌশলী শহিদুল্লাহ জানান, খুঁটিটি অপসারণের জন্য তিন মাস পূর্বে চিঠি দিলেও পল্লীবিদ্যুত সমিতি-২(কাশিনাথপুর) অফিস কর্ণপাত করেনি। এবিষয়ে স্থানীয় এমপি আলহাজ্ব এ্যাড: শামসুল হক টুকু ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার এসএম জামাল আহমেদকে অবগত করা হলে তারা কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বলেন। পাবনা-২(কাশিনাথপুর) পল্লীবিদ্যুত অফিসের জেনারেল ম্যানেজার প্রকৌশলী ইমদাদুল হক জানান, রাস্তার উপরে খুঁটি রয়েছে তা আমি অবগত নই। তবে দ্রুত সময়ে তা অপসারণে কাজ করা হবে।সাঁথিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার এসএম জামাল আহমেদ জানান, রাস্তার খুঁটি অপসারনে পল্লীবিদ্যুৎ অফিসকে অবগত করেছি। খুঁটি অপসারণের কথা বললেও এখনও খুঁটি যথাযথ স্থানে রয়েছে।