এস কে রঞ্জন: পটুয়াখালীর কলাপাড়ার পর্যটন কেন্দ্র কুয়াকাটার সোনার বাংলা আবাসিক হোটেলে নিয়ে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে এক নারীকে (১৮) ধর্ষনের অভিযোগে মহিপুর থানায় একটি মামলা হয়েছে। মৌসুমী রবিবার নিযার্তনের শিকার নারী বাদী হয়ে আল আমিন (২০) ও তার সহযোগী দালাল শামিমকে আসামী করে নারী ও শিশু নিযার্তন দমন আইন এ মামলা দায়ের করেন । পুলিশ এ ঘটনায় দুই নং অাসামীকে গ্রেফতার করেছে।

মহিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো, মনিরুজ্জামান জানান, কলাপাড়া পৌর শহরের ৩ নং ওয়ার্ডের রহমতপুর এলাকার ওই নারীর সাথে সাত মাস ধরে মোবাইলে প্রেম চলছিলো মহিপুরের আল আমিনের। প্রেমের সূত্র ধরে শনিবার বিকালে কুয়াকাটার আবাসিক হোটেল সোনার বাংলার ১০৪ নং কক্ষে ওই নারীকে নিয়ে যায় আল আমিন। সেখান বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে তার সাথে শারীরিক মেলামেশা করেন।পরবর্তীতে বিষয়টি উভয়ের পরিবার বিষয়টি জেনে গেলে হোটেল বসে অভিভাবকদের উপস্থিতে ওই নারীকে বিয়ে করতে অস্বীকার করে আল আমিন। এর আগেও ওই হোটেল নিয়ে তার সাথে শারীরিক মেলামেশা করে।

এ ঘটনায় ওই নারী থানায় মামলা দায়ের করেন ২ নং আসামী হোটেল মালিকের ছেলে শামিমকে গ্রেফতার করে পুলিশ। তাকে রবিবার দুপুরে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। ওই নারীর ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য পটুয়াখালী প্রেরণ করা হয়েছে। অভিযুক্ত আল আমিন ঘটনার পরই পালিয় যাওয়ায় তাকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলে পুলিশ জানান।