বাংলাদেশ প্রতিবেদক: সিলেটে আহবাব হোসেন নামের এক তরুণ তার সৎ মা ও ভাই-বোনকে কুপিয়ে হত্যা করেছে। তিনজনকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে হত্যার পর নিজে আত্মহত্যার চেষ্টাকালে ঘাতককে ছোরাসহ আটক করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) রাত সাড়ে ১২টার দিকে সিলেট মহানগরের শাহপরান থানাধীন খাদিমপাড়া এলাকার মীর মহল্লায় এ ঘটনা ঘটে।

স্ত্রী আর দুই সন্তানকে হারিয়ে বাকরুদ্ধ ব্যবসায়ী আবদাল হোসেন খান বুলবুল। তার প্রথমপক্ষের ছেলে আহবাব হোসেন ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে স্ত্রী রুবিনা বেগম, ৯ বছরের মেয়ে মাহা ও ৭বছরের ছেলে তাহসানকে।

ঘটনার পর আহবাব একটি কক্ষ বন্ধ করে আগুন লাগিয়ে দেয়। পরে পুলিশ ও এলাকাবাসী তাকে উদ্ধারের পর আটক করে।

শাহপরান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সৈয়দ আনিসুর রহমান জানান, নিহতদের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ওসমানী মেডিকেল কলেজের মর্গে পাঠানো হয়েছে। পারিবারিক বিরোধের জের ধরে এই ঘটনা ঘটেছে বলে ধারণা করছে পুলিশ।

একসময় দুবাই কাজ করতেন বুলবুল। তার প্রথম স্ত্রী, এক মেয়ে ও ঘাতক পুত্র আহবাব হোসেন সিলেটের বিয়ানীবাজারে থাকতেন। দ্বিতীয় স্ত্রীকে নিয়ে সিলেটে থাকতেন বুলবুল। ৪/৫ মাস আগে আহবাব সিলেটে আসেন।

Previous articleফেসবুকে প্রেম, দুই স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে ৭ যুবক গ্রেফতার
Next articleব্রাহ্মণবাড়িয়ার মোটরসাইকেল ও ট্রাক্টরের মুখোমুখি সংঘর্ষে ৩ জনের মৃত্যু
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।