আতিউর রাব্বী তিয়াস: জয়পুরহাটের আক্কেলপুরে পঞ্চম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। ওই ঘটনায় পুলিশ ধর্ষক কে তার নিজ বাড়ী থেকে গ্রেফতার করেছে। গতকাল শনিবার বিকেলে মেয়েটির মা বাদি হয়ে আক্কেলপুর থানায় মামলা দায়ের করেন। পরে পুলিশ অভিযুক্ত এমরান হোসেনকে গ্রেপ্তার করেছে। মামলা দায়ের করার পাঁচ দিন আগে তিলকপুর ইউনিয়নের একটি গ্রামে এই ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। মামলার এজাহার ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মেয়েটি স্থানীয় একটি মাদ্রাসায় পঞ্চম শ্রেণিতে লেখাপড়া করে। মেয়েটি নিজ বাড়িতে একাই একটি ঘরে থাকত। গত ৫ এপ্রিল রাতে ঘরে ঘুমাচ্ছিল মেয়েটি। এসময় প্রতিবেশী চাচা এমরান হোসেন (২৭) তার ঘরে ঢুকে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এ ঘটনাটি মেয়েটি তার অভিভাবকদের জানায়। পরে এ ঘটনাটি টাকার বিনিমেয় আপস করার চেষ্টা হয়েছিল। আপসে দফা রফা না হওয়ায় গত শনিবার বিকেলে মেয়েটির মা একজনকে আসামী করে থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। মেয়েটির মা বলেন, আমার ছোট্ট মেয়েটির সর্বনাশ করা হয়েছে। আমি এঘটনার বিচার চাই। এ কারণে থানায় মামলা করেছি। ঘটনার পাঁচদিন পর মামলা করা প্রসঙ্গে আরও বলেন, আপসের প্রস্তাব দিয়েছিল। আমরা সেটি মানিনি। আক্কেলপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাইদুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, ঘটনাটি পাঁচ দিন আগের হলেও মেয়েটির মা গতকাল শনিবার বিকেলে থানায় এসে এজাহার দিয়েছেন। মামলা রের্কডের পর অভিযুক্ত এমরান হোসেনকে তার বাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। আজ রোববার তাঁকে আদালতে পাঠানো হয়েছে। মেয়েটিকে ডাক্তারি পরীক্ষা করানো হবে।

Previous articleরাজাপুরে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে গুলিবিদ্ধ ১, বন্দুক উদ্ধার
Next articleকক্সবাজারে র‍্যাবের পৃথক অভিযানে ইয়াবা নিয়ে রোহিঙ্গাসহ আটক ৩
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।