বাংলাদেশ প্রতিবেদক: বরগুনায় স্ত্রীর বান্ধবীকে ধর্ষণের অভিযোগে গত ৫ আগস্ট গ্রেপ্তার হন রাব্বি নামের এক ব্যক্তি। এরপর এ ঘটনায় মামলা হলে আদালত রাব্বিকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। পরে গত ২২ আগস্ট কারাগার থেকে জামিনে মুক্তি পান তিনি।

জামিনে থাকা সেই রাব্বির বিরুদ্ধে এবার এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। বুধবার (২৯ সেপ্টেম্বর) রাতে বরগুনা সদর থানায় তার বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা দায়ের করেছেন নির্যাতিত ওই ছাত্রীর মা। এ ঘটনার পর থেকেই পলাতক রয়েছেন রাব্বি।

অভিযুক্ত রাব্বি বরগুনা সদর উপজেলার গৌরিচন্না এলাকার বাসিন্দা।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, গত ২৬ সেপ্টেম্বর এক বন্ধুর বাসায় নিয়ে এসএসসি পরীক্ষার্থী ওই ছাত্রীকে পাশবিক নির্যাতন করে রাব্বি। এরপর ধর্ষণের অভিযোগ থেকে বাঁচতে ওই ছাত্রীর সঙ্গে বিয়ের একটি ভুয়া কাবিননামা তৈরি করেন তিনি। এরপর এ ঘটনা স্থানীয়রা পুলিশকে অবগত করলে পুলিশ ওই বাসায় অভিযান চালায়। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে রাব্বি পালিয়ে যায়। পরে সেখান থেকে ভুক্তভোগী ওই শিক্ষার্থীকে উদ্ধার করে পুলিশ।

এ বিষয়ে ভুক্তভোগী স্কুলছাত্রীর মা বলেন, ‘আমার মেয়ে এসএসসি পরীক্ষার্থী। গত ২৬ সেপ্টেম্বর রাব্বী তার বন্ধু মামুনের বাসায় নিয়ে আমার মেয়েকে ধর্ষণ করে। এমনকি আমার মেয়ের সঙ্গে বিয়ের ভুয়া কাবিননামাও তৈরি করে সে। আমার মেয়ে চলে আসতে চাইলে নিজের বাসায় নিয়ে নির্যাতন চালায় রাব্বী। বিষয়টি থানায় জানালে পুলিশ আমার মেয়েকে উদ্ধার করে।’

বরগুনা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কে এম তারিকুল ইসলাম জানান, ধর্ষণের অভিযোগে রাব্বির বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে ভুক্তভোগী কিশোরীর মা। ঘটনার পর থেকেই রাব্বী পলাতক রয়েছে। তাকে গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।

তিনি আরও বলেন, ধর্ষণের অভিযোগে এর আগেও রাব্বীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। এছাড়াও সে মাদক মামলায়ও অভিযুক্ত।

Previous articleরোহিঙ্গা নেতা হত্যাকাণ্ডে দেশের ভাবমূর্তি বিনষ্ট হয়েছে: ফখরুল
Next articleরায়পুরে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে হামলা-ভাংচুর, লুটপাট, আহত ১০
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।