বাংলাদেশ প্রতিবেদক: মুলাদীতে ক্রিকেট ব্যাট দিয়ে পিটিয়ে নাতিকে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। উপজেলার চরকালেখান ইউনিয়নের জালালাবাদ লক্ষ্মীপুর গ্রামের মৃত আর্শেদ আলী হাওলাদারের ছেলে কাছেম হাওলাদার তার নাতি জিসানকে পিটিয়ে হত্যা করেন।

জিসান মালয়েশিয়া প্রবাসী নজরুল ইসলাম হাওলাদারের ছেলে এবং লক্ষ্মীপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্র। বৃহস্পতিবার সকালে নারকেল ও লেবু খাওয়াকে কেন্দ্র করে হামলার মধ্যে তাঁর দাদা কাছেম হাওলাদার ক্রিকেট ব্যাট দিয়ে তাঁর মাথায় আঘাত করে। এতে সে মারাত্মক আহত হলে চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানে তার মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় কাছেম হাওলাদারের বিরুদ্ধে ছেলেকে হত্যার অভিযোগ এনেছে মা জিয়াসমিন আক্তার। ঘটনার পর থেকে কাছেম হাওলাদার, তার অপর ছেলে আজিজুল হাওলাদার, পুত্রবধু আখিনূরসহ সংশ্লিষ্টরা পালিয়ে গেছেন। ফলে জিসানকে পরিকল্পিত ভাবে হত্যা করা হয়েছে বলে ধারণা করছেন তার স্বজনরা।

স্বজনরা জানান, বুধবার সকালে জিসান তার পিতার ক্রয়কৃত জমির গাছ থেকে নারকেল পাড়ে এবং লেবু ছিড়ে। এনিয়ে দুপুরে জিসানের মায়ের সাথে তার চাচা আজিজুল হাওলাদার ও চাচি আখিনূরের ঝগড়া হয়। এর জেরধরে জিসানের দাদা কাছেম হাওলাদার তার ঘরে বসে গভীর রাত পর্যন্ত শলাপরামর্শ করেন এবং রাতেই লোকজন জড়ো করে। বৃহস্পতিবার ভোর ৬টার দিকে জিসানের মা জিয়াসমিন আক্তার ঘর থেকে বের হতেই আখিনূর ও তার লোকজন হামলা চালায়। মায়ের ডাকচিৎকারে মেয়ে নাজমুন নাহার শিখা রক্ষা করতে গেলে আখিনূরের লোকজন তাকেও মারধর করেন। মা ও বোনের ডাকচিৎকারে জিসানের ঘুম ভেঙে গেলে বাইরে বের হলে দাদা কাছেম হাওলাদার ক্রিকেট ব্যাট দিয়ে মাথায় আঘাত করেন। ওই সময় জিসান অজ্ঞান হয়ে মাটিয়ে লুটিয়ে পড়ে। পার্শ্ববর্তী বাড়ির লোকজন এবং স্বজনরা মুলাদী হাসপাতালে নিয়ে আসলে চিকিৎসক তাকে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে প্রেরণ করেন। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

জিসানের মা জিয়াসমিন আক্তার বলেন, আমার ছেলে আমাদের ক্রয়কৃত জমির গাছের নারকেল ও লেবু খেয়েছে। ওই ঘটনার জেরধরে কাছেম হাওলাদার ও তার ছেলে পুত্রবধু মিলে জিসানকে হত্যা করেছে। মুলাদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এস.এম মাকসুদুর রহমান বলেন, দাদা ক্রিকেট ব্যাটের আঘাতে নাতির মৃত্যুর বিষয়টি শুনেছি এবং পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। স্বজনদের লিখিত অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Previous articleচাঁপাইনবাবগঞ্জে ‘এরফান গ্রুপ’র উদ্যোগে বস্ত্র ও ঈদ সামগ্রী বিতরন
Next articleসাভারে চলন্ত বাস থেকে ফেলে দেয়া যাত্রী আইসিইউতে, আটক ২
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।