মিজানুর রহমান বুলেট: পটুয়াখালী জেলা প্রশাসকের হস্তক্ষেপে কুয়াকাটায় অনির্দিষ্টকালের জন্য ডাকা রেস্তরাঁ মালিকদের ধর্মঘট প্রত্যাহার করা হয়েছে। বুধবার সকাল থেকে ধর্মঘট শুরু হলে জেলা প্রশাসন নড়েচড়ে বসে। এরপর কলাপাড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসারের মাধ্যমে কয়েক দফা আলাপ আলোচনায় জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে বসতে রাজি হন রেস্তরাঁ মালিক সংগঠনের নেতারা।

পটুয়াখালী জেলা প্রশাসক মোহম্মদ কামাল হোসেন রেস্তরাঁ মালিকদের স্বাস্থ্যসম্মত পরিবেশে এবং ন্যায্যমূল্যে খাবার বিক্রির নির্দেশনা দিয়ে আপাতত ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনায় সিথিল করার আশ্বাস দেবার দাবি করেছেন তারা। এরপর তারা জেলা প্রশাসককে ধর্মঘট প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত জানান। বুধবার দুপুরের পর প্রায় ঘন্টাব্যাপী বৈঠক শেষে রেস্তরাঁ মালিক সমিতির সভাপতি মোঃ সেলিম মুন্সী ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নিয়েছেন জানিয়ে বলেন, আমরা জেলা প্রশাসকের নির্দেশনা মেনে রেস্তরাঁ পরিচালনার জন্য প্রস্তুত রয়েছি। কিন্ত করোনা পরবর্তী সময় ব্যাপক লোকসানের মুখে চাইলেও রাতারাতি সবকিছু তাদের নির্দেশনামত করতে পারছিনা। এবিষয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটগণ কোনভাবেই আমাদের সময় প্রার্থনার বিষয়টি আমলে না নিয়ে দফায় দফায় মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করে আসছিল। এ অবস্থায় আমরা বাধ্য হয়ে ধর্মঘটে গিয়েছি।

জানা গেছে, বুধবার সকাল থেকে বন্ধ থাকা রেস্তরাঁগুলো বিকেল ৫টা থেকে খুলে দেওয়া হয়েছে। ধর্মঘট শুরু এবং প্রত্যাহার প্রসঙ্গে কথা বলার জন্য জেলা প্রশাসকের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করে তাকে পাওয়া যায়নি।

উল্লেখ্য, মঙ্গলবার রাত ১০টার দিকে আকস্মিক কুয়াকাটার রেস্তরাঁ মালিকরা তাদের রেস্তরায় দফায় দফায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের জরিমানাকে অযুক্তিক দাবি করে পরদিন সকাল থেকে রেস্তরাঁ অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ রাখার ঘোষণা দেয়। বুধবার সকাল থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত একটানা এ ধর্মঘট চলে। এসময় কুয়াকাটায় আগত পর্যটকদের বিড়ম্বনায় পড়তে হয়।

Previous articleদেশব্যাপী সিরিজ বোমা হামলার প্রতিবাদে শাহজাদপুরে আ’লীগের বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ
Next articleমুন্সীগঞ্জে আওয়ামী লীগের বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।