বাংলাদেশ প্রতিবেদক: মাদারীপুরের সদর উপজেলার শিরখাড়া ইউনিয়নের শ্রীনদী গ্রামের চা বিক্রেতা হাবীব বেপারির একমাত্র ছেলে রফিকুল বেপারি (২২) ধারদেনা, সুদ ও বসতভিটার ঘর ২৭ লক্ষ টাকায় বন্ধক রেখে ভাগ্যের চাকা ঘোরানোর আশায় লিবিয়া হয়ে ইতালির উদ্দেশ্যে পারি জমিয়েছিলেন। এদিকে গত মঙ্গলবার বাংলাদেশ সময় সকাল ১১ টায় ইতালি থেকে মুঠোফোনে খবর আসে রফিকুল বেপারি চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছে।

রফিকুলের মৃত্যুর সংবাদে পরিবারে শোকের মাতাম চলছে। একমাএ সন্তানকে হারিয়ে বাবা,মা ও বোনেরা বাকরুদ্ধ।

রফিকুলের পিতা হাবিব বেপারী জানায়, আমার ছেলে রফিকুলকে গত ফেব্রুয়ারিতে ইতালির উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে নিয়ে যান পার্শবর্তী ধুরাইল ইউনিয়নের হোসেনেরহাট এলাকার দালাল আলমগীর খা। এসময় দালাল আলমগীর কে আমি নগদ সারে ৯ লাখ টাকা দেই এবং পরে মাফিয়া দিয়ে ধরাইয়া আমার কাছ থেকে আরো দশ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয়। তারপরও আমার ছেলেকে লিবিয়া থেকে ইতালিতে গেম করায় নাই। পরে আমি অন্য দালাল কুদ্দুছের মাধ্যমে দশ লাখ টাকা দিয়ে গেম করাই। আলমগীর দালালের লোকেরা আমার ছেলেকে লিবিয়ায় শারীরিক নির্যাতন করে এবং অসুস্থ্য অবস্থায় ইতালি পৌছানোর পর হসপিটালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায়।

মাদারীপুর সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ মনোয়ার হোসেন জানান, এ বিষয়ে আমাদের কাছে কোন তথ্য নেই, বিষয়টি আমরা জানিনা।

Previous articleউখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ফের গুলিতে নিহত ১, গুলিবিদ্ধ ১
Next articleজবির এ ইউনিটে আবেদন ছাড়িয়েছে ২০ হাজার
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।