বাংলাদেশ ডেস্ক: রাশিয়ার একটি নার্সিং হোমে আগুনে পুড়ে ১১ জন মারা গেছেন। মধ্য রাশিয়ার কাঠের তৈরি ওই প্রবীণ নিবাসে মঙ্গলবার (১৫ ডিসেম্বর) আগুনের সূত্রপাত ঘটে। আগুন ছড়িয়ে পড়ায় সেখানে থাকা বেশ কয়েকজন আটকে পড়েন। এদের মধ্যে দগ্ধ হয়ে মৃত্যু হয় ১১ জনের।

এক বিবৃতিতে রুশ তদন্ত কমিটি জানায়, বাশকোর্তোস্তান অঞ্চলের ওই বাড়িটিতে অবহেলার কারণে অগ্নিকাণ্ড হতে পারে। পুরো বাড়িটি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এই সূত্র ধরে অপরাধমূলক তদন্ত শুরু করেছে কর্তৃপক্ষ।

বিবৃতিতে বলা হয়, ‘আগুন লাগার সময় ওই ছোট্ট কাঠের বাড়িতে ১৫ জন অবস্থান করছিলেন। এদের মধ্যে ৪ জনকে দ্রুত উদ্ধার করা গেছে। তবে বাকি ১১ জনকে অক্ষত অবস্থায় বের করা যায়নি।’

তদন্তের স্বার্থে পুড়ে যাওয়া মরদেহগুলি সংরক্ষণ করেছে প্রশাসন।

রাশিয়ার জরুরি বিষয়ক মন্ত্রণালয় জানায়, ‘ইশবুলদিনো গ্রামের নার্সিংহোমটি একতলা কাঠের বিল্ডিং ছিল। দমকল কর্মীরা সর্বশক্তি দিয়ে আগুন নেভানোর চেষ্টা করেছেন।’

তদন্তকারীরা বলছেন, পুড়ে যাওয়া বাড়িটি এনজিও চালিত।

রাশিয়ার অনেক জায়গায় বাড়ি নির্মাণে ত্রুটিপূর্ণ থাকায় প্রায় ঘটে দুর্ঘটনা। নিয়ম-নীতি না মেনে অবকাঠামো তৈরি করাতেই প্রাণ হারান অনেকে।