ফুলপুরে আপত্তিকর অবস্থায় ছাত্রীসহ শিক্ষক আটক

সদরুল আইন: ময়মনসিংহের ফুলপুর উপজেলায় এক শিক্ষক ও ছাত্রীকে অনৈতিক কাজে জড়িত থাকার অভিযোগে আটক করেছে পুলিশ। শুক্রবার সন্ধ্যায় ফুলপুর পৌর শহরের আমুয়াকান্দার একটি ভাড়া বাসা থেকে মাসুদ করিম (৪৫) ও স্থানীয় এক কলেজছাত্রীকে আটক করা হয়।

আটককৃত শিক্ষক ঢাকার আইডিয়াল স্কুল নামে একটি স্কুলের ফুলপুর শাখার পরিচালক ও মেধাবিকাশ কোচিং সেন্টারের শিক্ষক। তার বাড়ি ঢাকার মুগদা থানায়। বাবার নাম মৃত আব্দুল হাই।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মাসুদ করিম দীর্ঘদিন ধরে মেধা বিকাশ কোচিং সেন্টার নামে একটি কোচিং সেন্টারের পরিচালক।

কয়েকমাস আগে পয়ারী গোকুল চন্দ্র উচ্চ বিদ্যালয় ও পয়ারী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাত্র ৩০০ গজের ভেতরেই ঢাকার আইডিয়াল স্কুল নামে একটি প্রতিষ্ঠান করেন।

দির্ঘদিন ধরে এলাকায় তার কাছে প্রাইভেট পড়ুয়া ছাত্রীদের সাথে অনৈতিক সম্পর্ক নিয়ে নানা ধরনের অভিযোগ উঠলেও প্রভাবশালীদের সাথে চলাফেরা করায় বিষয়টি নিয়ে কেউ প্রতিবাদ করার সাহস পায়নি।

লোকলজ্জার ভয়ে অনেক ছাত্রীর পরিবার চুপ থাকে। পরিবার ঢাকায় বসবাস করলেও ফুলপুরে তিনি একাই থাকতেন।

অনুসন্ধানে জানা গেছে লম্পট শিক্ষকের নানা অপকর্মের কাহিনী। শুক্রবার সন্ধ্যায় ছাত্রীসহ বাসায় হাতে নাতে স্থানীয়রা ধরে তাদের গণধোলাই দিয়ে ৯৯৯ নাম্বারে ফোন করে থানায় সোপর্দ করে।

এ বিষয়ে পয়ারী গোকুল চন্দ্র উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আয়ুব আলী (খোকন )জানান, বিতর্কিত শিক্ষক মাসুদ করিমের বিরুদ্ধে দির্ঘদিন ধরে তার নানা অপকর্ম করার অভিযোগ রয়েছে। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নিয়ম নীতি না মেনে আইডিয়াল স্কুল করায় ফুলপুর উপজেলা নির্বাহী কার্যালয়ে লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়।

ফুলপুর থানার ওসি ইমারত হোসেন গাজী জানান, আটকৃত শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে এবং তাকে আদালতে পাঠানো হয়েছে। ছাত্রীকে নিজ পরিবারের কাছে হেফাজতে দেওয়া হয়েছে।