স্বপন কুমার কুন্ডু: “তারুণ্যকে নিয়ে পাল্টায় দেশ, ক্ষুধা মুক্তির বাংলাদেশ”। এই শ্লোগানকে সামনে রেখে অসহায় ও ছিন্নমূল মানুষদের মাঝে মাসব্যাপী ইফতার সামগ্রী বিতরণ করছে প্রতিশ্রুতি নামক সংগঠনের তরুণরা। যাদের এখনও ছাত্রত্ব শেষ হয়নি। ১২০ জন তরুণের হাত খরচের টাকা বাঁচিয়ে প্রতিদিন ১০ টাকা দিয়ে তারা রোজার প্রথমদিন থেকেই ইফতার বিতরণ করছে। ঈশ্বরদী পুরাতন বাসষ্ট্যান্ড, রেলগেটসহ বিভিন্ন মোড়ে মোড়ে সীমিত সাধ্যের মধ্যে তারা ইফতারি নিয়ে হাজির হচ্ছে।
ব্যবসা-বাণিজ্যেসহ কৃষি অর্থনীতিতে সমৃদ্ধ ঈশ্বরদী। ঈশ্বরদীতে রয়েছে বেশ কিছু বিত্তবান ও শিল্পপতি। প্রয়াত সাবেক ভুমিমন্ত্রী শামসুর রহমান শরীফ বলতেন, ঈশ্বরদীতে শতাধিক বিত্তশালী রয়েছে যাদের অর্থের পরিমাণ শতকোটি টাকারও বেশী। ঈশ্বরদীর এই বাস্তবতায় করোনা মহামারীর মধ্যে বিত্তশালীদের সমাজের কর্মহীন অসহায় মানুষদের পাশে দাঁড়িয়ে সহযেগিতার হাত বাড়িয়ে দিতে দেখা যায়নি। এরমধ্যেই শুরু হয় পবিত্র মাহে রমজান। এই পরিস্থিতিতে পবিত্র রমজান মাসে কর্মহীন হয়ে পড়া অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে কতিপয় তরুণ।
সংগঠনের একজন উদ্যোক্তা আসাদুজ্জামান রকিব বলেন, এখন কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয বন্ধ। বাড়িতেই বসে আছি। করোনার এই কঠিন সময়ে গরীব অসহায় মানুষেরা বিপদের মধ্যে আছেন। তাই তাদের পাশে দাঁড়ানো আমাদের নৈতিক দায়িত্ব। আমারা সদস্যরা হাত খরচের টাকা বাঁচিয়ে ১০ টাকা করে দিয়ে নিজেরাই ইফতার বানিয়ে বিতরন করছি। সামর্থ্য অনুযায়ী প্রতিদিন ১০০-১২০কে আমরা ইফতার দিচ্ছি। সমাজের বিত্তবানদের অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেয়ার জন্য এসময় তিনি অনুরোধ জানান।

Previous articleরংপুরে নতুন করে ৫ জেলায় ১৬ জনের করোনা আক্রান্ত শনাক্ত
Next articleরেসকোর্স ময়দানে প্রথম গাছ লাগিয়েছিলেন বঙ্গবন্ধু: কাদের
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।