বাংলাদেশ প্রতিবেদক: প্রতিবেশীসহ সব দেশের সঙ্গেই বাংলাদেশের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক থাকবে। কিন্তু কাউকে প্রভু হিসেবে মেনে নেওয়া যায় না, দেশের জনগণও তা মানবে না বলে জানিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

শুক্রবার (২৬ মার্চ) দুপুরে রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে জিয়াউর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা জানাতে এসে এ মন্তব্য করেন তিনি। বলেন, বিধিনিষেধ আরোপ করে ঢাকা শহরে মানুষের চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। জনগণকে বাদ দিয়েই স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী পালন করছে সরকার।

বিএনপির এবারের শ্রদ্ধা নিবেদন কর্মসূচি ছিল একেবারেই ভিন্ন। প্রশাসনের বিধিনিষেধের কারণে দলীয় নেতাকর্মীদের ছাড়াই শুধু শীর্ষ নেতা আসেন সমাধি প্রাঙ্গণে। দলীয় মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের সঙ্গে ছিলেন স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, নজরুল ইসলাম খান ও গয়েশ্বর চন্দ্র রায়। এ ছাড়া বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আবদুস সালামও ছিলেন সমাধি প্রাঙ্গণে। তারা সমাধিতে শ্রদ্ধা জানিয়ে দোয়া ও মোনাজাত করেন।

পরে দলীয় মহাসচিব বলেন, এবার বিএনপি নেতাদের সাভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধে যাওয়ার অনুমতিও দেওয়া হয়নি। তাই স্মৃতিসৌধে শ্রদ্ধা নিবেদনে ঢাকা জেলা ও বিভাগের নেতারা দলের প্রতিনিধিত্ব করছেন।

এ সময় ভারতের সঙ্গে দীর্ঘদিনের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের পরও তিস্তার পানি চুক্তি সম্পন্ন না হওয়া ও সীমান্ত হত্যা বন্ধ না হওয়ায় দুঃখ প্রকাশ করেন মির্জা ফখরুল।

Previous articleনিউজিল্যান্ডের কাছে হোয়াইটওয়াশ বাংলাদেশ
Next articleরাজশাহীতে ভয়াবহ ত্রিমুখী সংঘর্ষে নিহত ১৭
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।